ঢাকাTuesday , 7 June 2022
  1. অন্যান্য
  2. অর্থ ও বানিজ্য
  3. আন্তর্জাতিক
  4. ক্রাইম নিউজ
  5. খেলাধুলা
  6. গণমাধ্যম
  7. জাতীয়
  8. বিনোদন
  9. বিভাগের খবর
  10. রাজনীতি
  11. সর্বশেষ সংবাদ
  12. সারা বাংলা

ঈদের আগেই কাঠালিয়ার কচুয়া-বেতাগী নৌরুটে ফেরি উদ্বোধন

Barishal RUPANTOR
June 7, 2022 10:47 am
Link Copied!

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল: ঝালকাঠির কাঠালিয়া উপজেলার কচুয়া-বেতাগী নৌপথে ফেরি চলাচল ঈদের আগেই উদ্বোধন করা হবে বলে জানা গেছে। বিষখালী নদীর দুই পাড়ে বরগুনার বেতাগী ও ঝালকাঠির কাঠালিয়া উপজেলার কচুয়া গ্যাংওয়ের নির্মাণকাজ শেষ পর্যায়ে রয়েছে।

ফেরিও পৌঁছে গেছে ঘাটে। গ্যাংওয়ের কাজ শেষ হলেই ফেরিটি উদ্বোধন করা হবে। ফেরি চালু হলে কমে যাবে দূরত্ব। এতে দক্ষিণাঞ্চলের বিশেষ করে পটুয়াখালী, কুয়াকাটা, বরগুনা, বেতাগী, কাঠালিয়া, রাজাপুর, ঝালকাঠি, বরিশাল, বেকুটিয়া, খুলনা, পিরোজপুর, বাগেরহাট, সাতক্ষীরা, গোপালগঞ্জসহ বিভিন্ন এলাকায় খুব সহজে যাতায়াত করতে পারবেন যাত্রীরা।

 

জানা গেছে, ঝালকাঠি সড়ক বিভাগের অধীনে কাঠালিয়ার বীণাপানি, কচুয়া, বেতাগী, মির্জাগঞ্জ, পটুয়াখালী পর্যন্ত ছয় কিলোমিটার নৌপথে এ নতুন ফেরিঘাট স্থাপন করা হয়েছে। গত ৩১মে এই নৌপথে যানবাহনের টোলের পরিমাণ নির্ধারণ করা হয়েছে।

 

ট্রেইলার ২৫০ টাকা, হেভি ট্রাক ২০০, মিডিয়াম ট্রাক ১০০, বড় বাস ৯০, মিনি ট্রাক ৭৫, কৃষিকাজে ব্যবহৃত যানবাহন ৬০, মিনিবাস-কোস্টার ৫০, মাইক্রোবাস ৪০, ফোর হুইল যানবাহন ৪০, সিডান কার ২৫ এবং ৩-৪ চাকার মোটরাইজড যান ১০ ও মোটরসাইকেল/সাইকেল/রিকশা/ভ্যান ৫ টাকা হারে টোল নির্ধারণ করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

 

বেতাগী স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষক মো. মহসীন খান বলেন, আমার বাড়ি কাঠালিয়ায় হলেও আমি বেতাগী স্কুল অ্যান্ড কলেজে প্রভাষক পদে চাকরি করি। তাই প্রতিদিনই বিষখালী নদী পার হয়ে বেতাগী যেতে হয়। এখন ফেরি হওয়ায় যাতায়াত ব্যবস্থা আরও সহজ হবে।

 

পশ্চিম ছিটকী স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ মো. শহীদুল ইসলাম বলেন, কাঠালিয়ার পশ্চিম ছিটকী স্কুল অ্যান্ড কলেজে যেতে আমাকে প্রতিদিন কচুয়া খেয়া পার হতে হয়। অনেক সময় খেয়ার জন্য সঠিক সময় কলেজে যেতে পারি না। এখন এখানে ফেরি হওয়ায় নির্ধারিত সময় কলেজে যেতে পারব।

 

স্থানীয় ইউপি সদস্য এইচএম নাসির উদ্দিন আকাশ বলেন, পার্শ্ববর্তী উপজেলা বেতাগীর সঙ্গে কচুয়ার যোগাযোগের একমাত্র উপায় খেয়া পারাপার। এখন ফেরি সার্ভিস চালু হলে খুব সহজেই কুয়াকাটা পর্যটনকেন্দ্র, আমতলী, বরগুনা জেলাসহ বিভিন্ন নৌপথে গাড়ি নিয়ে যাতায়াত করতে পারবে এ অঞ্চলের মানুষ।

 

শৌলজালিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মো. মাহমুদ হোসেন রিপন জানান, শৌলজালিয়ার কচুয়া ফেরিঘাটের গ্যাংওয়ের কাজ ইতোমধ্যে শেষ হয়েছে। তবে বেতাগী অংশের গ্যাংওয়ের কাজ বাকি রয়েছে। বেতাগী অংশে গ্যাংওয়ের কাজ শেষ হলেই ফেরি চলাচল শুরু হবে।

 

ঝালকাঠি সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী শেখ নাবিল হোসেন বলেন, কচুয়া-বেতাগীতে ফেরি চলাচলের জন্য ইতোমধ্যে ফেরি ও ফেরি চলাচলের গ্যাংওয়ে ঘাটে চলে এসেছে। কচুয়া অংশে ফেরির গ্যাংওয়ের কাজ শেষ হয়েছে। তবে বেতাগী অংশের গ্যাংওয়ের কাজ বাকি রয়েছে। আশাকরি ঈদের আগেই এই নৌপথে ফেরি সার্ভিস উদ্বোধন করা হবে।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।