ঢাকাSaturday , 23 April 2022
  1. অন্যান্য
  2. অর্থ ও বানিজ্য
  3. আন্তর্জাতিক
  4. ক্রাইম নিউজ
  5. খেলাধুলা
  6. গণমাধ্যম
  7. জাতীয়
  8. বিনোদন
  9. বিভাগের খবর
  10. রাজনীতি
  11. সর্বশেষ সংবাদ
  12. সারা বাংলা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

পরিবেশ বিনষ্টকারীদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে: তথ্যমন্ত্রী

Barishal RUPANTOR
April 23, 2022 1:26 am
Link Copied!

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল: আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, বিভিন্নভাবে যারা পরিবেশ বিনষ্ট করছে, তারা দেশ ও জাতির শত্রু। এদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে সমাজের বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষকে এগিয়ে আসতে হবে।

শুক্রবার রাজধানীর তোপখানা রোডের সিরডাপ মিলনায়তনে বিশ্ব ধরিত্রী দিবস উপলক্ষে আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপকমিটি আয়োজিত ‘পৃথিবীকে রক্ষা করতে বাস্তুসংস্থানসমূহ নিরাপদ করি’ শীর্ষক সেমিনার হাছান মাহমুদ এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ‘প্রকৃতির ওপর যে অত্যাচার আমরা করছি, এরপরও কিন্তু পরিবেশ আমাদের প্রতি বিরূপ হয়নি। যারা নিজের স্বার্থে পরিবেশ ও প্রকৃতি ধ্বংস করছে এবং যারা বড় বড় শিল্পপতি তাদের স্বার্থে শিল্প উৎপাদনের জন্য পরিবেশ প্রকৃতিকে মাথায় না রেখে নদীকে গলা টিপে মারছে- তারাও দেশ, জাতি ও মানুষের শত্রু। তাদের বিরুদ্ধেও প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।’

তিনি বলেন, এই পৃথিবীর মালিক কিন্তু শুধু আমরা নই, ছোট্ট পিঁপড়া থেকে শুরু করে অন্য প্রাণিরাও এর মালিক। পৃথিবীর সমস্ত সম্পদ আামাদের প্রয়োজনে আমরা ব্যবহার করছি। কিন্তু ভবিষ্যতে আমাদের প্রয়োজন নিয়ে মাথা ঘামাচ্ছি না। এক সময় ডাইনোসর পৃথিবী দাপিয়ে বেড়িয়েছে। সেই ডাইনোসর বিলুপ্ত হয়ে গেছে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, আজকে পৃথিবী উষ্ণ হচ্ছে। এই যে তাপমাত্রা বাড়ছে এটা আমাদের কারণে বাড়ছে। শুধু তাপমাত্রা বাড়ছে না সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বাড়ছে, বরফ গলছে। আরো অনেক নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া হচ্ছে। এগুলো পৃথিবীর উষ্ণায়নের কারনে ঘটছে।

তিনি বলেন, পরিবেশ রক্ষায় দেশের মানুষ সচেতন নয়। ঢাকা শহরে দুই কোটি মানুষ বাস করেন। সবাই মনে করে, পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন রাখার দায়িত্ব শুধু ঢাকা সিটি করপোরেশনের। এভাবে একটা শহর কোনোভাবে বসবাস উপযোগী রাখা সম্ভব নয়।

যথেচ্ছা পলিথিন ব্যবহারের সমালোচনা করে হাছান মাহমুদ বলেন, ‘আমি নিজে কখনও পলিথিন ব্যবহার করি না। পলিথিন বন্ধে একটা আইন আছে। কিন্তু এখন সবকিছুতে পলিথিন দেওয়া হয়। কিছুদিন অভিযান পরিচালনা করে আবার হাওয়ায় মিলিয়ে যায়। মানুষ যদি পলিথিন না নিতেন, তাহলে পলিথিন আসতো না। মানুষকে সচেতন করতে হবে। নাহলে কোনো কিছুই রক্ষা পাবে না।’

তিনি বলেন, পরিবেশ রক্ষায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সারাবিশ্বে নেতৃত্ব দিচ্ছেন। এই স্পিড সবার মাঝে ছড়িয়ে দিতে পারলে পরিবেশ রক্ষা করা সম্ভব।

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য এবং বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপকমিটির চোরম্যান অধ্যাপক বজলুল হক খন্দকারের সভাপতিত্বে সেমিনারে মুল প্রবন্ধ উপাস্থাপন করেন বাংলাদেশ সেন্ট্রাল ফর অ্যাডভান্স স্টাডিজের নির্বাহী পরিচালক আতিক রহমান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক এবং উপকমিটির সদস্য সচিব দেলোয়ার হোসেন। আরও বক্তব্য রাখেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপউপাচার্য অধ্যাপক নাসরিন আহমেদ, বাংলাদেশ কাউন্সিল অব সাইন্স এন্ড ইন্ডস্ট্রিয়াল রিসার্স-এর চেয়ারম্যান অধ্যাপক আফতাব আলী শেখ, বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের উপউপাচার্য অধ্যাপক মাহবুবা নাসরিন, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি সোহেল হায়দার চৌধুরী প্রমুখ।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।